• প্রচ্ছদ » » স্বাধীন দেশ আর স্বাধীন রাষ্ট্র, পার্থক্য আর সম্পর্ক


স্বাধীন দেশ আর স্বাধীন রাষ্ট্র, পার্থক্য আর সম্পর্ক

আমাদের নতুন সময় : 13/12/2019

হাসনাত কাইয়ুম

লড়াইটা ছিলো রাষ্ট্রটিকে জনগণের বানানোর। তারা মানলো না, আমাদের উপর যুদ্ধ চাপিয়ে দিলো, আমরা যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করলাম। কিন্তু তারপর আমরা যে জন্য লড়াই করেছিলাম, যে জন্য যুদ্ধ করতে বাধ্য হয়েছিলাম, তাই ভুলিয়ে দেয়া হলো। আমাদের সামনে এমন একটা বয়ান তুলে ধরা হলো যাতে স্বাধীন দেশ আর স্বাধীন রাষ্ট্র একাকার হয়ে গেলো। আর তারপর আমাদের বোঝানো হলো যে আমরা বহুদিন থেকে স্বাধীনতার জন্যই লড়েছি। একটা স্বাধীন রাষ্ট্র বানানোর জন্য যে আমাদের দেশটা পর্যন্ত স্বাধীন করতে হলো, সেই রাষ্ট্র বানানোর আলাপটাই আমাদের মগজ থেকে শুষে নেয়া হলো। আমরা স্বাধীন দেশকেই স্বাধীন রাষ্ট্র ভেবে, তার কাছ থেকে স্বাধীন রাষ্ট্রের আচরণ না পেয়ে হতাশ হতে থাকলাম, মাথার চুল ছেঁড়লাম, পরস্পর পরস্পরকে শত্রæ বানালাম, আর আমাদের দিয়ে যে কিছু হবে না সেই আপ্তবাক্য ছড়াতে থাকলাম। আমরা এটা বুঝতেই পারলাম না যে দেশ মানে একটা নিদিষ্ট ভ‚খÐ আর রাষ্ট্র হলো সেই ভ‚খÐ পরিচালনার সর্ববৃহৎ এবং সর্বোচ্চ প্রতিষ্ঠান। রাষ্ট্র মানে আইন-কানুন-সংবিধান, পুলিশ-মিলিটারি, আ্দালত-সংসদ, কর্মকর্তা-কর্মচারী, সান্দ্রী-মন্ত্রী, ইত্যাদি। একটা দেশের আইন-কানুন, সংবিধান, রাষ্ট্র পরিচালনার বিধি-বিধান যেমন হবে রাষ্ট্রটি তেমনভাবেই চলবে। ৫০ বছর হতে চললো। স্বাদীন দেশ আর স্বাধীন দেশের উপযোগী রাষ্ট্র যে এক কথা নয়Ñ সেটাই এখনো পরিষ্কার হলো না। দেশ স্বাধীন করলেই যে আপনাআপনি স্বাধীন দেশের উপযোগী রাষ্ট্র গড়ে উঠে না, তা স্পষ্ট হবে কবে? এবারের বিজয় দিবসে অন্তত এই বিভ্রমটা পরিষ্কার করার দায়িত্বটা যদি আমরা নেই, আগামী বিজয় দিবসে বিজয়টা আরেকটু কাছে আসবে। ৫০তম বিজয় দিবসে রাষ্ট্রটি স্বাধীন করতে চাই। ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]