• প্রচ্ছদ » » পাঠকের হাতে না থাকা সংগ্রামের এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ রিপোর্টের কারণে হামলার আগে আইন ও প্রশাসন সচল হলো না কেন?


পাঠকের হাতে না থাকা সংগ্রামের এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ রিপোর্টের কারণে হামলার আগে আইন ও প্রশাসন সচল হলো না কেন?

আমাদের নতুন সময় : 15/12/2019

পীর হাবিবুর রহমান

একাত্তরের হানাদার বাহিনীর দোসর জামায়াতের মুখপাত্র দৈনিক সংগ্রামে যুদ্ধাপরাধী কাদের মোল্লাকে ‘শহীদ’ বলে বিতর্কিত রিপোর্টে হামলা ও সম্পাদককে আটক। এদিকে জামায়াতের বিতর্কিত সাংবাদিক নেতা নিয়ে আওয়ামী ফোরামের নেতারা যাচ্ছেন এনায়েতপুর প্রেসক্লাব উদ্বোধনে বিজয়ের মাসে। শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসের ক্রান্তিলগ্নের এই বেদনাবহ সময়ে কতো স্ববিরোধী আদর্শহীন ঘটনা পর্যবেক্ষণ করি। পাঠকের হাতে না থাকা সংগ্রামের এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ রিপোর্টের কারণে হামলার আগে আইন ও প্রশাসন সচল হলো না কেন? একজন ডিসিই তো যথেষ্ট ছিলেন ব্যবস্থা নিতে? পুলিশ প্রশাসন কি করেছিলো? হামলা যারা করেছেন আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় না থাকলে এ বীরত্ব দেখাতে পারতেন?
মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সাংবাদিকরা তো ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে বা ৫৭ ধারায় আটক হয়েছিলেন, অথচ মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সাংবাদিকদের চরিত্রহননের মামলায় সাইবার ক্রাইমের দায়িত্বে পুলিশ কর্মকর্তা নীরব। প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে জঘন্য অপপ্রচার মিথ্যাচারের তথ্য দেখেও উদাসীন। সবখানে এতো মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের লোক ক্ষমতায় ও দায়িত্বে তাহলে এতো ব্যর্থতা কেন? আবার কট্টরপন্থী আওয়ামী লীগ ও চতুর জামায়াত সাংবাদিকদের এমন দলাদলির রাজনীতির মুখে আজব গলাগলি কেমন সুবিধাবাদিতার মহামিলন ও আদর্শহীনতার নগ্ন মোলাকাত। এর জবাব প্রেসক্লাব নির্বাচনে হাতে ধরিয়ে দেয়া হবে। ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : info@amadernotunshomoy.com