বাংলাদেশের এগিয়ে যাওয়ার গল্পটি সহজ ছিলো না,

আমাদের নতুন সময় : 16/12/2019

শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে ক্ষিপ্র গতি পেয়েছে উন্নয়ন-অগ্রগতি, প্রান্তিক অর্থনীতি শক্ত ভিত্তির ওপর দাঁড়িয়ে আছে, তবে আইনের শাসন পুরোপুরি প্রতিষ্ঠিত হয়নি, বৈষম্য কমছে না বলেও মনে করেন অনুপম সেন আতিউর রহমান, আবুল কাসেম ফজলুল হক ও জাফরুল্লাহ চৌধুরীবাংলাদেশের এগিয়ে যাওয়ার গল্পটি সহজ ছিলো না
আশিক রহমান : শিক্ষাবিদ ড. অনুপম সেনের মতে, আমাদের সঙ্গে যে অন্যায়-অবিচার করেছিলো পাকিস্তানিরা, তা থেকে বের হয়ে আসছি আমরা। দুর্নীতি দমনে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে সরকার। রাজাকার-আলবদর-আলশামসদের বিচার হয়েছে। বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে দেশের মানুষের মাথাপিছু আয় এখন তিন থেকে চার হাজার ডলারের মধ্যে থাকতো। যেভাবে তিনি অর্থনীতিকে সংগঠিত করেছিলেন, তা ছিলো এককথায় অসাধারণ। তবে ইতোমধ্যে অসাধারণ হয়ে ওঠা তারই কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার পক্ষেই কেবল হাজারো প্রতিকূলতা মোকাবেলা করে উন্নয়ন-অগ্রগতি ও বাংলাদেশকে এগিয়ে নেয়া সম্ভব। উন্নয়ন-অগ্রগতির বিষয়টি ইতিবাচকভাবে দেখলেও গণতন্ত্র ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে কতোটা সফল বাংলাদেশ তা নিয়ে প্রশ্ন আছে শিক্ষাবিদ অধ্যাপক আবুল কাসেম ফজলুল হকের। তিনি বলেন, স্বাধীনতার পর, বিশেষ করে পঁচাত্তরের পর অনেক সরকার এসেছে, কিন্তু সরকারগুলো আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত করতে পারছে না। মানবাধিকতার নিশ্চিতের চেষ্টা করছে না। বরং দলীয় কিছু লোকের হীনস্বার্থে কাজ করছে। তার সঙ্গে দ্বিমত প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ ব্যংকের সাবেক গর্ভনর ড. আতিউর রহমান। তার মতে, বাংলাদেশ অনেকদিক থেকেই সফল। মানুষে আয়-আয়ু বেড়েছে। যা বঙ্গবন্ধু চেয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধুকন্যা চেষ্টা করে যাচ্ছেন সব বিরূপ পরিবেশ-প্রতিকূলতা মোকাবেলা করে বাংলাদেশকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যেতে। বঙ্গবন্ধুকন্যা যেন একটা স্থিতিশীলতা রক্ষা করতে পারেন, তার পাশে থাকতে হবে আমাদের। দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন উৎসাহজনক তা মানেন, কিন্তু এখানে এখনো গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা হয়নি বলে মনে করেন মুক্তিযোদ্ধা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। তিনি বলেন, আমাদের অর্থনৈতিক অগ্রগতি উৎসাহজনক। বিভিন্ন সামাজিক সূচকেও বেশ ভালো করছি। কিন্তু সব অর্জনই ম্লান দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত করতে পারিনি বলে। এই দায় রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের। জনগণেরও ব্যর্থতা আছে, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে পারিনি আমরা।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : info@amadernotunshomoy.com