ভারতের পেঁয়াজ দেশে আসলে দেশি পেঁয়াজের দাম হবে ২৫ থেকে ৪০ টাকা

আমাদের নতুন সময় : 05/03/2020

লাইজুল ইসলাম : [২] পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানী বন্ধ করার পর ২০১৯ সালে শেষের দুই মাস দেশে পেঁয়াজ বিক্রি হয় ২৫০ থেকে ৩০০ টাকায়।
[৩] এ অবস্থায় মিশর, চীন, মিয়ানমার, পাকিস্তান থেকে পেঁয়াজ আমদানি করে সরকার। তারপরও পেঁয়াজের দাম একশ’ টাকার নিচে নামানো যায়নি। দেশি পেঁয়াজ কিছুটা ওঠার পর গত কয়েকসপ্তাহ ধরে পেঁয়াজের দাম একশ টাকার মধ্যে চলে এসেছে।
[৪] গতকাল সকালে কারওয়ান বাজারে পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে মিয়ানমার ৬৫-৬৪, দেশি ৬৪-৬০, চায়নিজ ৪০-৪৫, পাকিস্তানি ৬০-৬২ টাকা প্রতি কেজি।
[৫] কারওয়ান বাজারের পাইকারি পেঁয়াজ ব্যবসায়ী আবদুল মালেক বলেন, ভারতীয় পেঁয়াজ দেশে আসলে চাষীরা ক্ষতিগ্রস্ত হবে। দাম বাড়তি দেখে কৃষকরা পেঁয়াজ চাষ করেছেন।
[৬] একই বাজারের আরেক ব্যবসায়ী কালাম শেখ বলেন, দেশের পেঁয়াজের বাজার এখন নি¤œমুখি। মিয়ানমারের পেঁয়াজ দেশে না আসলে এখনো পেঁয়াজের দাম একশ’ টাকার ওপরে থাকতো। সম্পাদনা : ভিক্টর রোজারিও




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]