• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » [১]গণস্বাস্থ্যের উদ্ভাবিত কিটের কার্যকারিতা পরীক্ষার প্রটোকল পরিবর্তনের জন্য সময়ক্ষেপন হচ্ছে [২]বিএসএমএমইউর রিপোর্ট পাওয়ার পর নিবন্ধনের ব্যবস্থা


[১]গণস্বাস্থ্যের উদ্ভাবিত কিটের কার্যকারিতা পরীক্ষার প্রটোকল পরিবর্তনের জন্য সময়ক্ষেপন হচ্ছে [২]বিএসএমএমইউর রিপোর্ট পাওয়ার পর নিবন্ধনের ব্যবস্থা

আমাদের নতুন সময় : 28/05/2020

শিমুল মাহমুদ : [৩] করোনা শনাক্তের জন্য নির্ভরযোগ্য পদ্ধতি রিভার্স ট্রান্সক্রিপশন-পলিমারেজ চেইন রিঅ্যাকশন টেস্ট (আরটি-পিসিআর)। তবে এটি একটি সময়সাপেক্ষ, জটিল এবং ব্যয়বহুল পরীক্ষা। এটির পর্যাপ্ত ব্যবহারের জন্য যে পরিমাণ দামি যন্ত্রপাতি বা দক্ষ জনবল দরকার তা বাংলাদেশে নেই। তাই গণস্বাস্থ্যের র‌্যাপিড টেস্টের প্রতি আগ্রহ প্রকাশ করছেন অনেকে। [৪] গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর দাবি, করোনা পরীক্ষায় আরটি-পিসিআর টেস্ট, যা যা করতে পারে আমরা সব করতে পারবো। থুথু দিয়ে এন্টিজেন করবো এবং রক্ত দিয়ে এন্টিবডি পরীক্ষা করবো। কফ প্রয়োজন হয় না। [৫] তিনি বলেন, আরটি-পিসিআরে বিশ্বে ৭০ ভাগ নিশ্চয়তার কথা বলা হচ্ছে, কিন্তু আমাদের এটায় শতভাগ নিশ্চয়তা দেয়া যাবে বলে আমরা আশাবাদি। [৬] বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া বলেন, গণস্বাস্থ্যের কিট নিয়ে আমাদের স্টাডি শেষ হয়নি। তারা প্রথমে বলেছিলো ব্লাড থেকে টেস্ট করবে। এখন বলছে, লালা থেকে টেস্ট করবে। এ কারণে পুরো প্রটোকল আমাদের বদলাতে হয়েছে, তারপরও দ্রুততার সঙ্গে আমরা সেটা করার চেষ্টা করছি। তাদের সঙ্গে প্রথম থেকেই গোপনীয়তার যে চুক্তি, সেটাও তারা বারবার ভঙ্গ করেছেন। [৭] ওষুধ প্রশাসন অধিদফতরের পরিচালক মো. রুহুল আমিন বলেন, বিএসএমএমইউ গণস্বাস্থ্যের পারফরমেন্স স্টাডি হচ্ছিল। সেই স্টাডি সম্পূর্ণ শেষ হয়নি। কিন্তু এই স্টাডিই মূল বিষয়। বিএসএমএমইউর ফলাফল এখনও পাওয়া যায়নি। সম্পাদনা : সালেহ্ বিপ্লব




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]