• প্রচ্ছদ » » কোনটা ‘লুট’ আর কোনটা অসহায় বিক্ষুব্ধ মানুষের হতাশার প্রকাশ, সেই প্রশ্ন তোলারই শক্তি নেই বিশ্বের অধিকাংশ লুণ্ঠিত সত্তার


কোনটা ‘লুট’ আর কোনটা অসহায় বিক্ষুব্ধ মানুষের হতাশার প্রকাশ, সেই প্রশ্ন তোলারই শক্তি নেই বিশ্বের অধিকাংশ লুণ্ঠিত সত্তার

আমাদের নতুন সময় : 03/06/2020

আলতাফ পারভেজ

আমেরিকায় বিক্ষোভকালে বড় বড় করপোরেটদের শো-রুমগুলো ভাঙচুর হয়েছে এবং সেখান থেকে কেউ কেউ জিনিসপত্রও নিয়ে গেছে। বিভিন্ন টিভি-চ্যানেল সেসব দৃশ্য দেখিয়ে বারবার ‘লুটিং’ শব্দটা ব্যবহার করছে। বিভিন্ন দেশের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও এসব ভিডিও খুব চলছে এখন। এসব প্রচারণার মূল উদ্দেশ্য স্পষ্ট, প্রতিবাদকারীদের নৈতিকভাবে খাটো করা। তবে এসব প্রচারণা হাস্যকরও বটে।
বিশেষ করে যখন কারো মনে পড়বে, এই দেশটির পুরো ভ‚খÐই ‘নেটিভ’দের থেকে লুট করা হয়েছিল একদা; কিংবা যখন এও মনে পড়বে কারোÑ এই করপোরেট প্রতিষ্ঠাগুলো দুনিয়াজুড়ে প্রাণ-প্রকৃতি আর শ্রম লুট করেই এতো এতো প্রবৃদ্ধি ঘটিয়েছে। কোনটা ‘লুট’ আর কোনটা অসহায় বিক্ষুব্ধ মানুষের হতাশার প্রকাশসেই প্রশ্ন তোলারই শক্তি নেই বিশ্বের অধিকাংশ লুণ্ঠিত সত্তার। ফলে ‘মূলধারা’র প্রচারযন্ত্রগুলো যা বলছেতাই নির্বিঘেœ অনুবাদ হয়ে চলে বিশ্বের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে বিভিন্ন ভাষায়। কাল সকালেই হয়তো বাংলা ভাষায়ও এসব ‘লুটিং’য়ের খবর পড়তে হবে! ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]