• প্রচ্ছদ » » একজন দরিদ্র মানুষকে মাংস খাওয়ানোর গল্প


একজন দরিদ্র মানুষকে মাংস খাওয়ানোর গল্প

আমাদের নতুন সময় : 29/07/2020

রুহিন হোসেন প্রিন্স

শৈশবের অনেক ঘটনাই আছে। সেসব ঘটনা প্রায় মনে পড়ে। বিশেষ করে একটি ঘটনা খুব মনে পড়ে। কোনো এক ঈদের দিন বাড়ির সবাই একসঙ্গে নামাজ পড়ে বাড়িতে ফিরে আসি এবং একসঙ্গে গল্প আড্ডা দিয়ে সময় পার করি। সেদিন আসরের ওয়াক্তে মসজিদে নামাজ পড়তে যাই। তখন প্রায় নিয়মিত নামাজ পড়তাম সবাই মিলে। আসরের ওয়াক্তে নামাজ শেষ হওয়ার পর মসদিরে অদূরে একজন মানুষ বমি করছেন। অনেক বমি। বমি করতে করতে হয়রান প্রায়। কেন এমনটি হচ্ছে. তা জানার চেষ্টা করলাম। কিন্তু তাৎক্ষণিক কোনো সদউত্তর পেলাম না। পরে খোঁজ নিয়ে জানতে পারি, ঈদের দিন তিনি অনেক মাছ খেয়েছিলেন। চিনি, সেমাই ও মাংস কিনে খাবার সামর্থ ছিলো না মানুষটির। কারণ আয় ছিলো খুবই কম। তিনি কোনো একটি প্রতিষ্ঠানে পিয়নের চাকরি করতেন।ঘটনার সবিস্তারে জানতে পেরে আমরা কয়েকজন বন্ধু মিলে সিদ্ধান্ত নিলাম, ঈদে সবাই মিলে কিছু চাঁদা সংগ্রহ করে ‘সেই’ দরিদ্র লোকটিকে সেমাই ও গোশত খাওয়ালাম। বন্ধুরা মিলে ঠিক করলাম, প্রতি ঈদে চাঁদা সংগ্রহ করে কিছু গরিব লোকের মাঝে সরবরাহ করবো। বিশেষ করে সেমাই, চিনি ও মাংস। সেটিই আমরা করতাম প্রতি ঈদে। পরিচিতি: রাজনীতিক




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : info@amadernotunshomoy.com