• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » [১]শেখ হাসিনা দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে ক্ষমতাধর নারী, প্রবীণ ও অভিজ্ঞ প্রধানমন্ত্রী [২]ড. মীজানুর রহমানের মতে, অভ্যন্তরীণ দারিদ্রতা হ্রাস ও রোহিঙ্গা ইস্যুতে বঙ্গবন্ধুকন্যার মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি আন্তর্জাতিক মহলের নজর কেড়েছে


[১]শেখ হাসিনা দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে ক্ষমতাধর নারী, প্রবীণ ও অভিজ্ঞ প্রধানমন্ত্রী [২]ড. মীজানুর রহমানের মতে, অভ্যন্তরীণ দারিদ্রতা হ্রাস ও রোহিঙ্গা ইস্যুতে বঙ্গবন্ধুকন্যার মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি আন্তর্জাতিক মহলের নজর কেড়েছে

আমাদের নতুন সময় : 29/09/2020

ভূঁইয়া আশিক : [৩] ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে প্রকাশিত যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক প্রভাবশালী সাময়িকী ফোর্বসের তালিকা অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দক্ষিণ এশিয়ায় সবচেয়ে ক্ষমতাধর নারী। [৪] দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে প্রভাবশালী দেশ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর চেয়ে বয়সে তিন বছরের ছোট। [৫] শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার চেয়ে বয়সে বড় হলেও দেশটির নির্বাহী প্রধান রাষ্ট্রপতির বয়স তার চেয়ে কম। [৬] পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান রাজনীতি ও বয়সÑউভয়দিক থেকে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার তুলনায় পিছিয়ে রয়েছেন। ৬৮ বছর বয়সী ইমরান খানের জন্ম ১৯৫২ সালের ৫ অক্টোবর। [৭] নেপালের প্রধানমন্ত্রী খড়্গ প্রসাদ শর্মা ওলি বয়সে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার চেয়ে ছোট হলেও দুজনের রাজনৈতিক ক্যারিয়ার কাছাকাছি। [৮] ভুটানের সরকার প্রধান দেশটির রাজা জিগমে খেসার নামগিয়াল ওয়াং চুক বয়সে খুবই নবীন। তিনি ২০০৬ সালে রাজা নির্বাচিত হন। [৯] মালদ্বীপের রাষ্ট্রপতি ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ রাজনীতি ও বয়স দুদিক থেকেই শেখ হাসিনার পেছনে। তিনি মালদ্বীপিয়ান ডেমোক্রেটিক পার্টির সহপ্রতিষ্ঠাতা। [১০] আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি আশরাফ ঘানির জন্ম ১৯৪৯ সালের ১৯ মে। তার রাজনৈতিক ক্যারিয়ার খুব বেশিদিনের নয়।
[১১] জগন্নাথ বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. মীজানুর রহমানের মতে, অভ্যন্তরীণ অর্থনীতি, সামাজিক ও রাজনৈতিক স্থিতিশীলতায় সুবিধাভোগী মানুষের দৃষ্টি কেড়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। করোনা সামলে অর্থনীতি গতিশীল করেছেন দৃঢ়চেতা সিদ্ধান্তে। নতুন নতুন চিন্তা প্রকাশ করে বিশে^র দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]