প্রকাশিত: Mon, Apr 29, 2024 12:01 PM
আপডেট: Sat, May 18, 2024 10:42 PM

[১]সেনা অভিযানে দুই কুকি-চিন সদস্য নিহত

বাবুল খাঁন: [২] আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) এ তথ্য জানিয়েছেন। রুমা উপজেলার দুর্গম বাকলাই পাড়া এলাকায় রোববার সেনাবাহিনীর অভিযানে তারা নিহত হন।

[৩] আইএসপিআর জানিয়েছেন, এ সময় তিনটি আগ্নেয়াস্ত্র, বিপুল পরিমাণ গোলাবারুদ, ওয়াকিটকি ও অন্যান্য সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়েছে।

[৪] সম্প্রতি পার্বত্য চট্টগ্রামের বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট বা কেএনএফের সশস্ত্র তৎপরতা বেড়েছে। এই সংগঠনের সশস্ত্র শাখা কুকি-চিন ন্যাশনাল আর্মি নামে পরিচিত।

[৫] কেএনএফের সদস্যরা সম্প্রতি রুমা ও থানচিতেই দুইটি সরকারি ব্যাংকে লুটপাট চালায়, অপহরণ করে এক ব্যাংক কর্মকর্তাকে। এছাড়া সরকারি স্থাপনায় হামলা ও প্রকাশ্যে গুলি চালিয়ে আতঙ্ক সৃষ্টি করে সংগঠনের সশস্ত্র সদস্যরা। এরপর কেএনএফের বিরুদ্ধে সাঁড়াশি অভিযান শুরু করে যৌথ বাহিনী।

[৬] আইএসপিআর জানিয়েছে, রোববার ভোর চারটার দিকে বান্দরবান রিজিওনের রুমা জোনের বাকলাই পাড়া ঘেরাও করে তল্লাশি অভিযান শুরু হয়। ভোর পৌনে পাঁচটার দিকে কেএনএ সন্ত্রাসীরা টহল দলের ওপর গুলি চালায়। নিরাপত্তা বাহিনী পাল্টা গুলি চালালে দুই কেএনএ সন্ত্রাসী নিহত এবং বেশ কয়েকজন আহত হয়।এরপর তল্লাশি চালিয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা তিনটি এসবিবিএল, বিপুল সংখ্যক কার্তুজ, ওয়াকিটকি সেট, মোবাইল ফোন ও ইউনিফর্ম উদ্ধার করা হয়। ওই এলাকায় নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযান এবং সন্ত্রাসীদের তল্লাশি কার্যক্রম চলমান রয়েছে বলে জানানো হয়েছে। 

[৭] দুর্গম বাকলাই পাড়া গোলাগুলির পর নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। তাদের পরনে কুকি-চিনের সামরিক পোশাক দেখা গেছে। সম্পাদনা: সমর চক্রবর্তী