[১]মিতু হত্যার পর তিনটি বিয়ে করেন তার স্বামী বাবুল আক্তার

আমাদের নতুন সময় : 17/05/2021

মাসুদ আলম: [২] মিতুর বাবা মোশাররফ হোসেন বলেন, বাবুল গ্রেপ্তারের পর তার নানা অপকর্ম বের হতে শুরু হয়েছে। ইতিমধ্যে দু’জনের সঙ্গে বিচ্ছেদ হয়েছে, বর্তমানে একজনের সঙ্গে সংসার করছেন তিনি। তৃতীয় স্ত্রীকে নিয়ে মোহাম্মদপুরে থাকতেন। এছাড়া এক ডজন নারীর সঙ্গে পরকীয়া ছিলো তার।
[৩] তিনি আরও বলেন, মিতু হত্যার পর সন্তানরা যাতে না জানতে পারে বাবুলই মিতুর খুনি, সেকারণে তার সন্তানদের সঙ্গেও বাবুল মিতুর বাবা-মাকে দেখা করতে দেননি। মিতুর দুই সন্তান এখন কোথায় আছেন তাও জানা নেই। মিতু মারা যাওয়ার পর বাবুল যেভাবে ভেঙে পড়ার অভিনয় করে তাতে আমরাও দুঃখ প্রকাশ করি। তবে তার সব অভিনয় আস্তে আস্তে ফাঁস হয়ে যায়। কারণ মিতু মারা যাওয়ার কয়েকদিনের মধ্যে বাবুল এক মেয়েকে বিয়ে করে। তার সঙ্গে ঢাকার মগবাজারে আড়াই বছর সংসার করে। এরপর মেয়েটি তাকে ছেড়ে চলে যায়।
[৪] মোশাররফ বলেন, এরপর বাবুলের সঙ্গে খুলনার এক মেয়ের বিয়ে হয়। তাকে নিয়ে মোহাম্মদপুরে তিনমাস ভাড়া থাকে বাবুল। এরপর সেই মেয়ের সঙ্গেও বিচ্ছেদ হয়ে যায়। কয়েকমাস আগে সে কুমিল্লার এক প্রকৌশলীর স্ত্রীকে বিয়ে করে। এ ছাড়াও বাবুল আক্তারের সঙ্গে ঝিনাইদহের এক এসআইয়ের স্ত্রীর সম্পর্ক ছিলো। মিতুর ছোটবোনের দিকেও বাবুল নজর ছিলো। ভারতীয় নাগরিক এনজিও কর্মী গায়েত্রীর সঙ্গে পরকীয়ার বিষয়টি জানাজানি হলে মিতুকে নির্যাতন ও হত্যার হুমকি দেন বাবুল। ওই নারীকে গ্রেপ্তার করা হোক। সম্পাদনা: শাহানুজ্জামান টিটু




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]