• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » [১]ঈদের বাকি আর তিন দিন, করোনা ঝুঁকির মধ্যেও বাড়ি ফিরছে মানুষ [২]রাজধানী ফাঁকা হলেও সড়ক মহাসড়কে গাড়ির চাপে থেমে থেমে যানজট [৩]স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্বস্তির রেলযাত্রা


[১]ঈদের বাকি আর তিন দিন, করোনা ঝুঁকির মধ্যেও বাড়ি ফিরছে মানুষ [২]রাজধানী ফাঁকা হলেও সড়ক মহাসড়কে গাড়ির চাপে থেমে থেমে যানজট [৩]স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্বস্তির রেলযাত্রা

আমাদের নতুন সময় : 17/07/2021

শিমুল মাহমুদ: [৪] দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার প্রবেশদ্বার শিমুলিয়ায় সকাল থেকেই ফেরিঘাটে দেখা গেছে যানবাহনের দীর্ঘ সারি আর লঞ্চঘাটে মানুষের জট। শিমুলিয়া-কাওড়াকান্দি নৌরুটে ৮০টি লঞ্চ ও ১৩টি ফেরি চলাচল করছে, কিন্তু যানবাহন ও মানুষের চাপে কুলিয়ে উঠতে পারছে না সেগুলো। উত্তাল পদ্মায় ফেরি চলাচলে ধীর গতির কারণে ঘাটে জট আরও বাড়ছে।
[৫] দৌলতদিয়া ফেরিঘাটে ঘরমুখো মানুষের চাপ: দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটের ফেরি বহরে চলাচল করছে ছোট-বড় মিলিয়ে মাত্র ১৫টি ফেরি। রোজার ঈদে এ রুটে অন্তত ২০টি ফেরি যানবাহন ও যাত্রী পারাপার করে। এ অবস্থায় হঠাৎ করে যাত্রী ও যানবাহন সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় ঘাট এলাকায় মহাসড়কে দীর্ঘ সারির সৃষ্টি হয়েছে। প্রচণ্ড রোদ ও ভ্যাপসা গরমে আটকে পড়া যাত্রীরা দুর্ভোগে পড়েছেন। পাশাপাশি ট্রাকে থাকা গরু নিয়ে বিপাকে পড়েছেন মালিক ও ব্যাপারীরা। [৬] আসন ফাঁকা রেখে ট্রেনে যাত্রীদের স্বাস্থ্যবিধি মানাতে কঠোর অবস্থানে রেল কর্তৃপক্ষ। সকাল থেকে স্টেশনে আসা যাত্রীদের সামাজিক দূরত্ব বজায় না থাকলেও কম বেশি সবাই মাস্ক ব্যবহার করে প্লাটফর্মে প্রবেশ করছেন। যাত্রীদের ২ ভাগে লাইন ধরে স্টেশনে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে। [৭] বাসে এবারও ভোগান্তি: সায়েদাবাদ, মহাখালী ও গাবতলী হয়ে ঘরমুখো যাত্রীরা তীব্র যানজট আর টিকিট সংকটে চরম ভোগান্তিতে পড়ছে। রয়েছে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের অভিযোগ। নেই স্বাস্থ্যবিধি।
[৮] সদরঘাটে ভিড় : সকাল থেকেই সদরঘাটে ঘরমুখো মানুষের ভিড় দেখা গেছে। দক্ষিণবঙ্গের বরিশাল, ভোলা, হাতিয়া, মনপুরা, চাঁদপুর, বরগুনা, পিরোজপুরসহ জেলা-উপজেলার ঘরমুখো যাত্রীরা লঞ্চঘাটে অপেক্ষা করছে। যাদের লঞ্চ বিকালে বা সন্ধ্যায়, তারাও টার্মিনালে আসতে থাকে দুপুর ১২টা থেকে। টার্মিনাল, পন্টুন, লঞ্চে কিছুটা যাত্রীর ভিড় ছিল। একই সঙ্গে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় ও স্বাস্থ্যবিধি না মানার অভিযোগ করেছে অনেক যাত্রী।
[৯] সড়ক-মহসড়ক গাড়িজট: সাভারের ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত তীব্র যানজট ছিল। তবে দুপুরের পর স্বাভাবিক হয় যান চলাচল। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লা অংশে পণ্যবাহী ও যাত্রীবাহী যানবাহনের তীব্র চাপ বাড়তে থাকে। সম্পাদনা: শাহানুজ্জামান টিটু




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]