প্রকাশিত: Mon, Aug 7, 2023 11:29 PM
আপডেট: Thu, Jul 25, 2024 6:17 AM

নিছক একটি গায়েবি গল্প

ওয়াহিদউদ্দিন মাহমুদ, ফেসবুক থেকে: রাত দুটো বাজে প্রায়। টেলিফোন বেজেই চলছে। থানার ওসি সাহেব শেষে বিরক্ত হয়ে বিছানার পাশে রাখা ফোন ধরলেন।

- হ্যালো

- স্যার, আপনার সাথে আমার এখুনি একবার জরুরি দেখা করতে হবে।

- পাগল হয়েছ, আর সময় পেলে না। 

- স্যার, এখুনি না আসলে কাল হয়তো আমার গ্রেফতারি পরওয়ানা জারি হয়ে যাবে। আমার গরিব পরিবারের প্রতি সেটা খুব অবিচার হবে। বাড়িতে গিয়ে পুলিশ ঝামেলা করবে। আমি সম্পূর্ণ নির্দোষ, আমার কাছে যে প্রমাণ আছে তা একবার দেখলেই আপনি বুঝতে পারবেন। 

- কিসের কেইস তোমার বিরুদ্ধে?

- আজকের একটা রাজনৈতিক সহিংস ঘটনার মামলার কথা আপনি জানেন। অনেকের সাথে নাকি আমাকেও আসামি করা হয়েছে, কিন্তু বিশ্বাস করেন স্যার ঐ এজাহারে বলা ঘটনাস্থলের কাছেধারেও আমি ছিলাম না, আমার কাছে তার প্রমাণ আছে।

- এতো ভালো জ্বালাতন দেখি, রাত দুপুরে আর কাজ পেলে না। আচ্ছা, কাল সকালে থানায় এসে তোমার কাগজপত্র জমা দিয়ে যেও। 

- দিনের বেলায় তো আমি আসতে পারবো না স্যার। 

- আর বাজে বকতে পারবো না, আমি ফোন রাখলাম। 

- একটু শুনুন স্যার, আমি অনেক দূর থেকে এসেছি, আপনার দরজার সামনেই আছি। 

- কি আশ্চর্য, তোমাকে গেইটের গার্ডরা ঢুকতে দিয়েছে!

- ওরা আমাকে দেখতে পায়নি। স্যার, অনেক কষ্ট করে এসেছি, হাড় ঠক ঠক করে শীতে কাঁপছি। 

- এই গরমের দিনে শীতে কাঁপছ মানে কি! পাগলের পাল্লায় পড়া গেলো, তোমার কাগজপত্র গার্ডদের কাছে দিয়ে বিদায় হও। 

- না স্যার, এতদূর এলাম, আপনার হাতেই দিতে চাই। আর আপনার সাথে একটু দেখা করাও জরুরি। 

- কিসের এতো মূল্যবান কাগজপত্র তোমার?

- ছয় মাস আগের আমার ডেথ সার্টিফিকেট। আমি ঘরে ঢুকছি স্যার। 

ওসি সাহেবের মনে হলো ঘরটা কেমন ঠাণ্ডা হয়ে আসছে, কনকনে শীত আসছে যেন কোথাও থেকে।